মুসাফির সেজে বাড়িতে প্রবেশ করে বিভিন্ন কবিরাজি কথার ছলে গৃহবধূকে পানি পড়া খাইয়ে ৬৫ হাজার টাকা নিয়ে চম্পট দিয়েছে দুই প্রতারক। ঘটনাটি মঙ্গলবার (৮ জুন) বিকেলে আদমদীঘি উপজেলার সদর ইউনিয়নের ছোটজিনইর গ্রামে ঘটেছে। এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। 

জানা যায়, মঙ্গলবার বিকেলে হঠাৎ দুই ব্যক্তি গায়ে জুব্বা, পাঞ্জাবি, মাথায় টুপি, সুন্নতি লেবাস পড়ে মুছাফির সেজে উপজেলার ছোটজিনইর গ্রামে আনু মন্ডলের বাড়িতে আসে।

Advertisement

ঠিক দুপুরের পর পর বাড়িতে পুরুষ লোক না থাকার সুযোগে আনু মন্ডলের স্ত্রী পারভীন বেগমকে বিভিন্ন কবিরাজি কথা বলে তাকে ফাঁদে ফেলে। এক পর্যায়ে তাকে পানি পড়া খাওয়ান। পানি পড়া খাওয়ানোর কিছুক্ষণ পর পারভীন বেগম নিজেই ঘরে গচ্ছিত ৬৫ হাজার টাকা কাউকে না জানিয়ে তাদের হাতে তুলে দেন। 

এর কিছু পর পারভীন বেগম অজ্ঞান হয়ে পড়ে। আর এই সুযোগে ওই দুই প্রতারক আনু মন্ডলের ধান বিক্রয়ের ৬৫ হাজার টাকা নিয়ে তড়িঘড়ি করে চম্পট দেয়। তবে ওই দুই প্রতারকের পরিচয় এখনো পাওয়া যায়নি। 
 
আদমদীঘি থানার ভারপ্রাাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জালাল উদ্দীন বলেন, এ ঘটনাটি জানা নেই। ভুক্তভোগী থানায় অভিযোগ করলে বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে খতিয়ে দেখা হবে।

Advertisement