উজ্জ্বল ফর্সা ত্বক পাবার জন্য আমরা কত কিছুই না করি, নামি দামি ব্র্যান্ডের ক্রিম থেকে শুরু করে বিলিচিং করা কিনবা পার্লারের ফেসিয়াল কোন কিছুই বাদ থাকে না। এতে অনেক সময় কাড়ি কাড়ি টাকা নষ্ট হয় কিন্তু আমরা আমাদের সকলের কাম্য সে উজ্জ্বল ফর্সা ত্বক পাই না বরং অনেক সময় নানা ধরনের ত্বকের সমস্যায় ভুগে থাকি।

বর্তমানে আমাদের দেশে পাকিস্তান থেকে আসা সকল রং ফরসাকারি ক্রিম ব্যান হয়ে গেছে, যা বিগত ৫-৬ বছর ধরে বাজার দখল রেখেছিল। এই সব ক্রিমে রয়েছে মার্কারি ও লেড যা স্কিন ক্যান্সার হবার প্রধান কারন। এই ক্রিম গুলোর মধ্যে এই দুইটি উপকরন এতো বেশি মাত্রায় ছিল যে তা ত্বকে কিছুদিন ব্যাবহার করলেই ত্বককে পাতলা করে ফেলত। এই ক্রিমগুলো প্রচুর পরিমানে বিক্রি হত কারন এগুলো ব্যাবহারের ফলে ত্বক কেমন যেন ফ্যাকাসে হয়ে যেত যা সবাই ফর্সা হয়েছে বলে সবাই মনে করতো। কিন্তু বাস্তবে বিষয়টি সম্পূর্ণ ভাবে ভুল, এই সব ক্রিম ব্যাবহার করে বেশির ভাগ এমন সব ত্বকের সমস্যায় ভুগেছেন যা বলে শেষ করা যাবে না।

আপনি চাইলে ঘরে বসেই সম্পূর্ণ ঘরোয়া উপাদান দিয়ে খুব তারাতারি আপনার ত্বকের রঙ ফর্সা করতে পারবেন, তাহলে আর দেরি না করে চলুন দেখে নি কিভাবে তা করবেন আর এর জন্য কি কি উপাদান আপনার প্রয়োজন।

দুধ ও চালের গুড়ো

আধা কাপ চালের গুড়োর সঙ্গে পরিমান মতো কাচা দুধ মিশিয়ে একটি প্যাক তৈরি করুন। এই প্যাকটি গোসলের সময় মুখে সহ সমস্ত শরিরে লাগিয়ে ১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন, এরপর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে হালকা করে ঘসে ঘসে ধুয়ে ফেলুন এতে আপনার ত্বক উজ্জ্বল হবে।

আলুর রস

মুখে নিয়মিত আলুর রস ব্যাবহার করুন এতে আপনার মুখের ত্বক উজ্জল হবে খুব তারাতারি। তবে এই আলুর রস বের করে ফ্রিজে রেখে ব্যাবহার করবেন না, যখন ব্যাবহার করবেন ঠিক তখন তা বের করবেন। এই রস ১০ মিনিটের বেশি সময় ধরে লাগিয়ে রাখবেন না।

গোলাপ

মুখে নিয়মিত গোলাপজল ব্যাবহার করলে আপনার মুখ শুধু উজ্জ্বল হবে না বরং আপনার মুখে ফুটে উঠবে এক ধরনের গোলাপি আভা। আপনি চাইলে গোলাপজন সরাসরি তুলোর বলের সাহায্যে ব্যাবহার করতে পারেন বা যে কোন ধরনের উপটানের সাথে মিশিয়ে ব্যাবহার করতে পারেন।