হবিগঞ্জে মসজিদে নামাজ পড়তে গিয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ অন্তত ১২ জন আহত হয়েছেন। গুরুতর অবস্থায় আটজনকে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বাকিদের স্থানীয় ক্লিনিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

শুক্রবার দুপুরে সদর উপজেলার ধল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

Advertisement

আহত আব্দুল খালেক জানান, তার সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলছিল একই গ্রামের মনাই মিয়ার ছেলে কাজল মিয়ার। শুক্রবার জুম্মার নামাজ পড়তে মসজিদে গিয়ে তারা বাগ্‌বিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়েন। এক পর্যায়ে মুসল্লিদের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি শান্ত হলেও নামাজের পর পরই দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা চালায় কাজলের লোকজন। পরে খালেকের লোকজন পাল্টা হামলা চালায়। এতে নারীসহ অন্তত ১২ জন আহত হন।

গুরুতর আহত আব্দুল খালেক, কাজল মিয়া, খেলু মিয়া, রুজিনা খাতুন, নুরুল আমিন, রবিউল ইসলাম, আওয়াল মিয়া ও রুহুল আমিনকে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

হবিগঞ্জ সদর মডেল থানার ওসি মো. মাসুক আলী জানান, সংঘর্ষের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে। এখন পর্যন্ত কেউ অভিযোগ করেনি। লিখিত অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Advertisement