ছেলে মেয়ের বিয়েতে বাবা মা কত কিছুই না করতে চান, তবে এই বরের বাবা যা করেছেন তা কেউ কোন করেননি, এমনকি স্বপ্নেও করার কথা ভাবেননি। তবে হলফ করে এই কথাটাও বলেতে পারি যে এমন কোন কিছু এরপর আর হয়তো কেউ কোনদিন করবেনও না।

এখন আপনার মনে প্রশ্ন জাগতে পারে যে, এমন কি করছেন এই বরের বাবা যার জন্য তিনি এত বেশি ধরনের আলোচিত ও সেই সাথে ফেসবুকে হয়েছেন ভাইরাল?
এই বরের বাবা তার ছেলের বিয়ের যখন বরযাত্রী নিয়ে কনের বাড়ির দিকে যাচ্ছিলেন তখন হেলিকাপ্টারে বসে থেকে বরযাত্রীর উপর টাকা ঊড়িয়ে ফেলছিলেন। এখন আপনার মনে হতে এ বাবার নতুন কি? সবাইতো কম বেশি এমনটি করে থাকেন।

Advertisement

সেই কথা আপনি সঠিক ভাবছেন যে সবাই কম বেশি এমন করে থাকেন, কেউ আবার বরকে টাকার মালা পড়িয়ে নিয়ে যান। তবে এখানে যদি আপনি যদি টাকার পরিমানের কথাটি জানেন তাহলে আপনার চোখ কপালে উঠবে আর সেই সাথে আপনার চিন্তা হবে হবে এ কি করে সম্ভব!

তবে যাই মনে করেন না কেন, পাকিস্তানের এই বরের বাবা বরযাত্রীদের উপর নিজে হাতে ১৫ কোটি পাকিস্তানি টাকা ফেলেছেন হেলিকাপ্টারে বসে। তার নাম মাণ্ডি বাহুউদ্দীন, তিনি পাকিস্তানের হাড়িয়ানা প্রদেশের বাসিন্দা। সবাই মনে করছেন যে, তিনি এমন কান্ড ঘটিয়েছেন শুধু মাত্র পুরো বিশ্বে আলোচিত হওয়ার জন্য।

তিনি ফেসবুকে ভাইরাল হবার পর নেটিজেনেরা সবাই তাকে নিয়ে নিন্দা প্রকাশ করেন ও সেই সাথে তার টাকা যে কালো টাকা কিনা তা খুতিয়ে দেখার জন্য প্রশাসন যে আহ্বান করেন।

Advertisement